২৮১ পদে ভূমি মন্ত্রণালয় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২৩ প্রকাশিত! [Ministry Of Land Job]

ভূমি মন্ত্রণালয় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছে। ভূমি মন্ত্রণালয় হচ্ছে বাংলাদেশ সরকারের একটি মন্ত্রণালয় যেটি যুগোপযোগী পরিকল্পনা ও নীতির মাধ্যমে বাংলাদেশের ভূমি ও এ মন্ত্রণালয়ের অধীন অন্যান্য বিষয়ের সুষ্ঠ ও সর্বোত্তম ব্যবহার সুনিশ্চিত করার দায়িত্ব পালন করে থাকে।ভূমি মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন  উপজেলা ও ইউনিয়ন অধিদপ্তর কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন প্রকল্পের পদসমূহে জনবল নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে।আগ্রহী ও যোগ্য ব্যক্তিদের আবেদন করার জন্য আহব্বান করা হচ্ছে।

ভূমি মন্ত্রণালয় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তির যাবতীয় তথ্য

প্রতিষ্ঠানের নামঃ  ভূমি মন্ত্রণালয়
চাকরির ক্যাটাগরিঃ সরকারি  চাকরি
পদের সংখ্যা ২৮১
বয়স  সর্বোচ্চ ৩২ বছর
আবেদন শুরু চলমান
আবেদন শেষ ২৫মার্চ ২০২৩
অফিসিয়াল ওয়েবসাইটঃ latc.teletalk.com.bd

সরকারি বেসরকারি সব ধরনের চাকরির খবর সবার আগে পাবেন newjobscircular.com ওয়েবসাইটে। তাই যেকোনো ধরনের চাকরির খবর পেতে ভিজিট করুন আমাদের ওয়েবসাইটে। ভূমি মন্ত্রালয় জব সার্কুলার 2023 সম্পর্কিত যাবতীয় তথ্য দেখতে নিচের ছবিটি লক্ষ্য করুন -বিস্তারিত তথ্য দেখুন নিচের ছবিতে।

আরো কয়েকটি মন্ত্রণালয় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তির তথ্যঃ

ভূমি মন্ত্রালয় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২৩

ভূমি মন্ত্রণালয়ের স্মারক নং-৩১.০০.০০০০.০৩৭.০২,১০১.১৭-১১৪, তারিখ-০৬/০৩/২০২২ খ্রিস্টাব্দ এর মাধ্যমে প্রাপ্ত ছাড়পত্র অনুযায়ী ভূমি প্রশাসন প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে শুন্য পদে অস্থায়ী ভিত্তিতে বিধি মোতাবেক সরাসরি কোটায় জনবল নিয়োগের জন্য নিম্নবর্ণিত পদসমূহে পদের পার্খে বর্ণিত শর্তে প্রকৃত বাংলাদেশি নাগরিকদের নিকট হতে নির্দেশক্রমে আবেদনের আহব্বান করা যাচ্ছে।

১। পদের নামঃ সার্ভেয়ার
পদের সংখ্যাঃ ২৮১
শিক্ষাগত যোগ্যটাঃ ডিপ্লোমা ইন ইঞ্জিনিয়ারিং
বেতনঃ ১০,২০০-২৪,৬৪০

Ministry Of Land Job Circular 2023

 

 

ওয়েব সাইটঃ https://land.gov.bd/

Apply Online: latc.teletalk.com.bd

আবেদনের নিয়ম ও শর্ত

  1. ১৮/০৫/২০২২ খ্রিঃ তারিখে সাধারণ প্রার্থীর বয়সসীমা ১৮-৩০ বছর। তবে মুক্তিযোদ্ধা/শহীদ মুক্তিযোদ্ধার পুত্র-কন্যা  এবং শারীরিক প্রতিবন্ধীদের ক্ষেত্রে বয়সসীমা ৩২ বছর। বয়স প্রমাণের ক্ষেত্রে এভিডেভিট গ্রহণযোগ্য নয়।
  2. সরকারি, আধা সরকারি ও স্থায়ন্তশাসিত প্রতিষ্ঠানে চাকরিরত প্রার্থীদের অবশ্যই যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমতিক্রমে আবেদন করতে হবে।
  3. চাকরিরত প্রার্থীদের সকল শর্ত পুরণ সাপেক্ষে আবেদনপত্র পূরণের সময় এর ঘরে টিক চিহ্ন দিতে হবে। অন্যদের ক্ষেত্রে এই শর্ত প্রযোজ্য নয়। তবে সকল চাকরিরত প্রার্থীকে মৌখিক পরীক্ষায় সময় নিয়োগকারী কর্তৃপক্ষ কর্তৃক প্রদত্ত অনাপত্তি ছাড়পত্রের মূলকপি জমা দিতে হবে।
  4. নিয়োগের ক্ষেত্রে সরকারের বিদ্যমান বিধি-বিধান এবং পরবর্তীতে এ সংক্রান্ত বিধি-বিধানে কোন সংশোধন হলে তা অনুসরণ করা হবে।
  5. লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য কোন প্রকার টিএ/ডিএ প্রদান করা হবে না।
  6. মৌখিক পরীক্ষার সময় সকল সনদপত্রের মূল কপি প্রদর্শন করতে হবে এবং পূরণকৃত  ফর্ম সহ সত্যায়িত একসেট ফটোকপি দাখিল করতে হবে।
  7. এছাড়া জেলার স্থায়ী বাসিন্দার প্রমাণক হিসেবে ইউনিয়ন পরিষদ/পোরসভা/সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক প্রদত্ত সনদ, জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি এবং আবেদনকারী মুক্তিযোদ্ধার পুত্র-কন্যার পুত্র-কন্যা হলে আবেদনকারী যে মুক্তিযোদ্ধা/শহীদ মুক্তিযোদ্ধার পুত্র-কনার পুত্র-কন্যা এ মর্মে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন চেয়ারম্যান/সিটি কর্পোরেশনের ওয়ার্ড কাউন্সিলর/পৌরসভার মেয়র/কাউন্সিলর কর্তৃক প্রদন্ত সনদের সত্যায়িত ফটোকপি দাখিল করতে হবে। আবেদনকারীকে তার সর্বশেষ অর্জিত শিক্ষাগত যোগ্যতার বিষয়টিও উল্লেখ করতে হবে।
  8. কর্তৃপক্ষ বিজ্ঞপ্তিতে উল্লিখিত পদের সংখ্যা হাস/বৃদ্ধি এবং বিজ্ঞপ্তি বাতিল করার অধিকার সংরক্ষণ করেন।
  9. নিয়োগ সংক্রান্ত বিষয়ে নিয়োগকারী কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্ত চুড়ান্ত বলে গণ্য হবে.

ভূমি মন্ত্রণালয় সম্পর্কে
বাংলাদেশ একটি কৃষি প্রধান দেশ। কৃষি হচ্ছে এ দেশের অন্যতম জাতীয় আয়ের অন্যতম উৎস এবং প্রায় দুই-তৃতীয়াংশ মানুষের জীবন-জীবিকার অবলম্বন। তাই এ দেশে ভূমি ও পানি সম্পদের গুরুত্ব অপরিসীম। ভূমি হচ্ছে মৌলিক প্রাকৃতিক সম্পদ যা মানুষের নিত্য প্রয়োজনীয় খাদ্যদ্রব্য, শিল্পপণ্য, ভোগ বিলাস, স্বাস্থ্য রক্ষার উপকরণ ইত্যাদির মূল উৎস।

বর্তমানে ভূমি রেকর্ড ও জরিপ অধিদপ্তর, ভূমি সংস্কার বোর্ড, ভূমি আপীল বোর্ড, ভূমি প্রশাসন প্রশিক্ষণ কেন্দ্র এবং হিসাব নিয়ন্ত্রক (রাজস্ব) দপ্তর ভূমি মন্ত্রণালয় এর অধীনে কাজ করছে। বিভাগীয় পর্যায়ে কমিশনার, জেলা পর্যায়ে কালেক্টর (জেলা প্রশাসক), উপজেলা পর্যায়ে সহকারী কমিশনার(ভূমি), ইউনিয়ন পর্যায়ে ইউনিয়ন ভূমি সহকারী কর্মকর্তা (তহশীলদারগণ) ভূমি সংক্রান্ত কার্যাদি সম্পাদনে নিয়োজিত রয়েছেন। ভূমি উন্নয়ন কর ও রাজস্ব আদায়, খাস জমি ব্যবস্থাপনা ও বন্দোবস্ত, জলমহাল ব্যবস্থাপনা, ভূমি অধিগ্রহণ ও হুকুম দখল, ভূমি রেকর্ড ও জরিপকরণ এবং ভূমি সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা/কর্মচারীদের প্রশিক্ষণ প্রদান ইত্যাদি বিষয়ে ভূমি মন্ত্রণালয়ের কাজ করে থাকে।

 

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*