বাংলাদেশ তাঁত বোর্ড নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি 2024 [www.bhb.gov.bd Job Circular]

বাংলাদেশ তাঁত বোর্ড নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২৩, www.bhb.gov.bd job circular প্রকাশ করা হয়েছে। গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের অধীন বাংলাদেশ তাঁত বোর্ডে নিম্নবর্ণিত পদে কর্মকর্তা, কর্মচারী নিয়োগ করা হবে। আগ্রহী প্রার্থীদেরকে তাদের যোগ্যতা অনুযায়ী আবেদন করার আহবান করা হয়েছে ।

বাংলাদেশ তাঁত বোর্ড জব সার্কুলারের তথ্য

প্রতিষ্ঠানের নাম বাংলাদেশ তাঁত বোর্ড
চাকরির ধরণ স্থায়ী পূর্ণকালীন চাকরি
কত ক্যাটাগরির পদ ২০ ধরনের
পদের সংখ্যা ৮৫ জন
আবেদনের বয়স সীমা বিজ্ঞপ্তি থেকে দেখে নিন
আবেদন শুরু ৩০ মার্চ ২০২৩৩
আবেদন শেষ ৩০ এপ্রিল ২০২৩
প্রতিষ্ঠানের ধরণ সরকারি প্রতিষ্ঠান
অফিসিয়াল ওয়েবসাইট http://www.bhb.gov.bd

সরকারি বেসরকারি সব ধরনের চাকরির খবর সবার আগে পাবেন  newjobscircular.com এই ওয়েবসাইটে। তাই যেকোনো ধরনের চাকরির খবর পেতে ভিজিট করুন আমাদের ওয়েবসাইটে। বাংলাদেশ তাঁত বোর্ড  জব সার্কুলার 2023 সম্পর্কিত যাবতীয় তথ্য দেখতে নিচের ছবিটি লক্ষ্য করুন।

বাংলাদেশ তাঁত বোর্ড নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২৩

বাংলাদেশ তাত বোর্ডের রাজস্ব খাতভুক্ত  নিম্ন বর্ণিত অস্থায়ী শূন্য পদসমূহে সরাসরি নিয়োগের নিমিত্ত পদের পার্শে উল্লিখিত শিক্ষাগত যোগ্যতা এবং নিম্নলিখিত শর্তে বাংলাদেশের স্থায়ী নাগরিকদের নিকট থেকে  http://bhb.teletalk.com.bd/ অনলাইনে এ পূরণকৃত আবেদনপত্র সনদপত্র বা অন্য কোন দলিলাদি সংযুক্ত করতে হবে । অনলাইন  ব্যতীত অন্য কোন মাধ্যমে প্রেরিত আবেদন গ্রহণ করা হবে না।

Bangladesh handloom board job circular 2023 : tat board job circular

 

Bangladesh handloom board job circular 2023 : tat board job circular

Application Start: 30 March 2023

Application Deadline: 30 April 2023

পরীক্ষার ফি:

ক্রমিক নং-১ ও ২ এ উল্লিখিত পদের জন্য প্রতি প্রার্থীকে পরীক্ষার ফি বাবদ ৭০০/-(সাতশত) টাকা এবং ক্রমিক নং- ৩ হতে ৭ এ
উল্লিখিত পদের জন্য প্রতি প্রার্থীকে পরীক্ষার ফি বাবদ ৫০০/-(পাচশত) টাকা টেলিটকের এর মাধ্যমে জমা প্রদান করতে হবে।

আবেদনের শর্তাবলীঃ নিয়বর্ণিত শর্তাবলী আবেদন ফরম পুরণ এবং পরীক্ষায় অংশগ্রহণের ক্ষেত্রে অবশ্যই অনুসরণ করতে হবেঃ

ক) বাংলাদেশ তাঁত বোর্ডের গত ০১ ডিসেম্বর ২০২৩ খ্রিঃ তারিখের ২৪.০৫.০০০০.৫১১.১১.০০৪,১৯.৫৭৪ নং স্মারকমূলে গত ০৩ ডিসেম্বর ২০২৩ খ্রিঃ তারিখে “দৈনিক ইত্তেফাক”   .” পত্রিকায় প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তিতে “ইনস্টরাক্টর’,“ডিজাইনার’,“হিসাব সহকারী’, “টেকনিশিয়ান’ মাষ্টার ভায়ার”, “দক্ষ তাঁতি’ এবং ‘ড্রাফটসম্যান” পদে আবেদনকারীদের আবেদন বহাল থাকবে। তাদের পুনরায় উক্ত পদে আবেদন করার প্রয়োজন নেই।

খ) ২৭ মার্চ ২০২৩ তারিখ প্রার্থীর বয়সসীমা বিজ্ঞপ্তির ৫ নং কলামের বর্ণনা অনুযায়ী হতে হবে। মুক্তিযোদ্ধা/শহীদ মুক্তিযোদ্ধার পুত্র-কন্যা ও শারীরিক প্রতিবন্ধীদের ক্ষেত্রে বয়সসীমা সবোর্ঠ ৩২ বছর। বয়স প্রমাণের ক্ষেত্রে এফিডেভিট গ্রহণযোগ্য নয়।

গ) সরকারি, আধা-সরকারি ও স্বায়ন্তশাসিত প্রতিষ্ঠানে চাকরিরত প্রার্থীদের অবশ্যই যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমতিক্রমে আবেদন করতে হবে তবে সকল চাকুরিরত প্রার্থীকে মৌখিক পরীক্ষার সময় নিয়োগকারী কর্তৃপক্ষ কর্তৃক প্রদত্ত অনাপত্তি ছাড়পত্রের মূলকপি জমা দিতে হবে।

ঘ) নিয়োগের ক্ষেত্রে সরকারের বিদ্যমান বিধি-বিধান এবং পরবর্তীতে এ সংক্রান্ত বিধি-বিধানে কোন সংশোধন হলে তা অনুসরণ করা হবে।

ঙ ) মৌখিক পরীক্ষার সময় সকল সনদপত্রের মূল কপি প্রদর্শন করতে হবে এবং পূরণকৃত ফরম সহ সত্যায়িত একসেট ফটোকপি দাখিল করতে হবে। এছাড়া জেলার স্থায়ী বাসিন্দার প্রমাণ হিসেবে ইউনিয়ন পরিষদ/পৌরসভা/সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক প্রদত্ত সনদ, জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি এবং প্রযোজ্যক্ষেত্রে আবেদনকারী মুক্তিযোদ্ধার পুত্র-কন্যার পুত্র-কন্যা হলে আবেদনকারী যে মুক্তিযোদ্ধা/শহীদ মুক্তিযোদ্ধার পুত্র-কন্যার পুক্র-ন্যা এ মর্মে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান/সিটি কর্পোরেশনের ওয়ার্ড কাউন্সিলর/পৌরসভার মেয়র/কাউন্সিলর কর্তৃক প্রদত্ত সনদের সত্যায়িত ফটোকপি দাখিল করতে হবে। আবেদনকারীকে তার সর্বশেষ অর্জিত শিক্ষাগত যোগ্যতার বিষয়টিও উল্লেখ করতে হবে।

চ) চাকুরিরত প্রার্থীদেরকে অবশ্যই যথাযথ কর্তৃপক্ষকে অবহিত করে আবেদন করতে হবে। লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলে দলিলাদি দাখিলের সময় যথাযথ কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে সংশ্রিষ্ট কাগজপত্র প্রেরণ করতে হবে।

বাংলাদেশ হ্যান্ডলুম বোর্ড বা বাংলাদেশ তাঁত বোর্ড এর চেয়ারম্যান জশিম উদ্দিন আহমেদ। বাংলাদেশ তাঁত বোর্ড ১৯৭৮ সালের জানুয়ারিতে বাংলাদেশ সরকার প্রতিষ্ঠা করেছিল। সরকারি এই বোর্ড বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়  পরিচালনা করে। বাংলাদেশ তাঁত বোর্ড কর্তৃক বেনারসি শাড়ি,  জামদানি শাড়ি এবং মসলিনের শাড়ি উৎপাদন ও তদারকি করে। ১৯৮১ সালে এটি নরসিংদীতে তাঁত ব্যবহারের জন্য প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠা হয়েছিলো। ২০১৩ সালে বাংলাদেশ তাঁত বোর্ড আইনটি পাস হয়।

উন্নত প্রযুক্তির মাধ্যমে তাঁত শিল্পের সার্বিক উন্নয়ন ও সম্প্রসারণ করে দেশব্যাপী তাঁতীদের আর্থসামাজিক অবস্থার উন্নয়ন অগ্রগতি সাধন করা বাংলাদেশ তাঁত বোর্ডের অন্যতম লক্ষ্য। এছাড়া,  তাঁতীদের সেবা প্রদান; তাঁতীদেরকে  সমিতি গঠনের মাধ্যমে সংগঠিত করা; তাদের দক্ষতা উন্নয়ন এ কাজ করা, সমগ্র বাংলাদেশে তাঁত বস্ত্রের উৎপাদন বৃদ্ধি এবং বিশেষ কারিগরী ব্যাবস্থার উন্নয়ন ও প্রশিক্ষণ এর ব্যাবস্থা করা। ক্ষুদ্রঋণ, তাঁতিদের পুনর্বাসন; দেশ বিদেশে তাঁত বস্ত্রের বাজারজাতকরণ সুবিধা সৃষ্টির জন্য

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *